বিএনপির একাধিক নেতা আওয়ামী লীগে যোগ দেওয়ার পর জাতীয়তাবাদী দলের মধ্যে অনেকেই আর বিএনপি করবেন না বলে সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। Bd news Bangla

শনিবার (২ ডিসেম্বর) বেলা ১২টায় ধানমন্ডিস্থ আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন

আজ বুধবার (২৯ নভেম্বর) সকালে রংপুর নগরীর সেন্ট্রা

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বিএনপির সমর্থন কমে গেছে। অনেকে দল পাল্টেছেন। ভেতরে ভেতরে অনেক লোক বলছে, জীবনে আর বিএনপি করবে না।’

বিএনপি নেতা শাহজাহান ওমর আওয়ামী লীগে যোগ দেওয়া এবং ঝালকাঠি-১ আসন থেকে মনোনয়ন পাওয়া প্রসঙ্গে কাদের বলেন, ‘উনি বিএনপি ছেড়ে আওয়ামী লীগে এসেছেন। এটা কি অপরাধ?’

বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতাদের অনেকেই এখনো জেলে আছেন। শাহজাহান ওমরও জেলে ছিলেন। জেল থেকে বের হলেই আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পাওয়ার বিষয়টি কাকতালীয় কি-না এমন এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বিএনপির অন্যান্য যে নেতারা আছেন, অপরাধের সাথে বিষয়টা তুলনা করতে হবে। আপনি একজন পুলিশকে প্রকাশ্য দিবালকে হত্যা করলেন, বিএনপির যে নেতাকর্মী যারা জেলে আছেন, তারা এ দায় এড়াতে পারেন না।’

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীসহ সব কিছু এখন নির্বাচন কমিশনের নিয়ন্ত্রণে উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘নির্বাচন কমিশন এখন সম্পূর্ণ স্বাধীন। নির্বাচন সংক্রান্ত কোনো কিছু এখন আর সরকারের কথায় হয় না।’

তিনি বলেন, গণতন্ত্র মানে প্রতিযোগিতা। সুষ্ঠু নির্বাচন, সুষ্ঠু প্রতিযোগিতা। এটাই গণতন্ত্র।

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পাওয়া নেতাকর্মীদের দাবি, দলীয় স্বতন্ত্র প্রার্থীদের বসিয়ে দেওয়া। এ বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমি পার্টি অফিসে সকাল বিকাল বসে থাকি। আমি তো কোনো অভিযোগ পাইনি। নির্বাচন করুক, দেখা যাক।

কাদের বলেন, নির্বাচন সংক্রান্ত কোথাও কোনো ক্লাস বা সংঘাত হলে পুরো দায়িত্ব এখন নির্বাচন কমিশনের। নির্বাচন কমিশন যে সিদ্ধান্ত নেবে তার প্রতি আমাদের আস্থা আছে।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, শেখ হাসিনার প্রতি, তার নেতৃত্বের প্রতি আস্থাশীল। তার কোনো সিদ্ধান্ত মেনে নেওয়ার মানসিকতা আমাদের নেতাকর্মীদের আছে।

এ সময় অন্যদের মধ্যে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য কামরুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিমসহ দলের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

clipping path tech

‘গণতন্ত্রে বিশ্বাস করলে বিএনপি নির্বাচনে আসতো’

‘গণতন্ত্রে বিশ্বাস করলে বিএনপি নির্বাচনে আসতো’ | Bd news Bangla – 24NBN

শনিবার (২ ডিসেম্বর) সকালে শরীয়তপুরের নড়িয়ায় দলীয় কার্যালয়ে উপজেলা ও সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের বিশেষ বর্ধিত সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

দুর্যোগ-দুর্বিপাকে ছাত্রলীগ অগ্রণী ভূমিকা পালন করে উল্লেখ করে  তিনি বলেন, যে কোনো অপশক্তির বিরুদ্ধে সজাগ থাকতে হবে। সকল অপশক্তিকে মোকাবিলায় ছাত্রলীগকে অগ্রণী ভূমিকা রাখতে হবে।

তিনি  বলেন, যে সংগঠন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গড়ে তুলেছিলেন মাতৃভাষা আদায়ের জন্য, যে সংগঠন এদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম এবং মুক্তিযুদ্ধে অবদান রেখে গেছে, যে সংগঠন এদেশের গণতান্ত্রিক অধিকার প্রতিষ্ঠা এবং দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার পথে অগ্রণী ভূমিকা নিচ্ছে, সেই সংগঠনের নামই বাংলাদেশ ছাত্রলীগ। বিশ্ব দরবারে বাঙালি জাতি মাথা উঁচু করে চলবে, সেটিই হবে আমাদের আজকের দিনের প্রতিজ্ঞা। তাই ছাত্রলীগের প্রতিটি নেতাকর্মীকে ক্লিন ইমেজ নিয়ে আসন্ন নির্বাচনে জননেত্রী শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় আনতে কাজ করতে হবে।

metafore online

এনামুল হক শামীম বলেন, ছাত্রলীগের সৃষ্টিই হয়েছে চ্যালেঞ্জ সংগ্রামের মধ্য দিয়ে। সূচনা থেকে অদ্যাবধি ছাত্রলীগের সব অর্জনই আকাশসম প্রতিকূলতাকে অতিক্রম করে। ছাত্রলীগ জাতির পিতার হাতে গড়া সংগঠন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মতো একজন সরকারপ্রধান পেয়ে বর্তমান প্রজন্মের শিক্ষার্থীরা সৌভাগ্যবান। আসন্ন নির্বাচনে শেখ হাসিনার নিরঙ্কুশ বিজয়ের পথে শিক্ষার্থী ও তরুণ সমাজকে নিয়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে এবং একই আওয়াজ তুলে ছাত্রলীগ নৌকার বিজয় সুনিশ্চিত করবে, বলে আমি বিশ্বাস করি।

সভায় সভাপতিত্ব করেন নড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আসাদুজ্জামান বিপ্লব এবং সঞ্চালনায় ছিলেন কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরান খালাসীর। এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নড়িয়া পৌরসভার মেয়র আবুল কালাম আজাদ, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক মাল, সাধারণ সম্পাদক হাসানুজ্জামান খোকন, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক উপ কমিটির সদস্য জহির সিকদার, বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি নুর এ আলম আশিক।

Share.

Leave A Reply

Exit mobile version